Pallibarta.com | মাছ ধরতে গিয়ে এখনো ফেরেনি ২০ জন জেলে - Pallibarta.com

বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১

মাছ ধরতে গিয়ে এখনো ফেরেনি ২০ জন জেলে

বঙ্গোপসাগরে মাছ ধরতে গিয়ে সাত দিন ধরে নিখোঁজ ৩২ জেলের মধ্যে ১২ জেলে একটি ট্রলারে করে ফিরে এসেছেন। তবে এখনও নিখোঁজ রয়েছেন আরও ২০ জেলে।

শনিবার (২ সেপ্টেম্বর) বিকাল সাড়ে ৩টায় ১২ জেলেসহ এফবি মায়ের দোয়া নামক ট্রলারটি পাথরঘাটা বিএফডিসি মৎস্য ঘাটে পৌঁছেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছে জেলা ট্রলার মালিক সমিতি।

ফিরে আসা ট্রলারটির মালিক ও জেলেদের প্রত্যেকের বাড়ি বরগুনার পাথরঘাটা উপজেলায়। ট্রলারটিতে মোট ১২ জন ছিলেন। মালিকের নাম আবদুর রহমান। নিখোঁজ ট্রলারটির নাম এফবি আবদুল্লাহ। মালিকের নাম মো. লিটন মাহমুদ। সে ট্রলারে ছিলেন ২০ জন।

গত ২৫ সেপ্টেম্বর পাথরঘাটা বিএফডিসি মৎস্য ঘাট থেকে অন্যান্য ট্রলারের সঙ্গে মাছ ধরার জন্য সাগরে রওনা করে এ দুই ট্রলার। কিন্তু হঠাৎ তারা যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। বিষয়টি ট্রলার মালিক, সমিতি ও কোস্ট গার্ডকে জানানো হয়। এর ছয় দিন পরে এফবি মায়ের দোয়া ট্রলারের সন্ধান মেলে। ট্রলারটি আজ বরগুনায় আনা হয়। সুস্থ আছেন ট্রলারে থাকা ১২ জেলে।

উদ্ধার হওয়া জেলেরা হচ্ছেন- পাথরঘাটা উপজেলার মঠেরখাল এলাকার নুর মোহাম্মাদ মিস্ত্রির ছেলে শাহজাহান, ছত্তার মোল্লার ছেলে আব্দুর রশিদ, খালেক মিস্ত্রির ছেলে মাসুদ, আব্দুল কুদ্দুসের ছেলে আমির হোসেন, আব্দুর রহমানের ছেলে মিরাজ, নুরু মিয়ার ছেলে ছগির, তাফালবাড়ি এলাকার খলিল গোলদারের ছেলে ফারুক, আব্দুর রহমানের ছেলে আব্দুস ছত্তার, আব্দুল লতিফের ছেলে নাসির, জ্ঞানপাড়া এলাকার আব্দুল গনির ছেলে খলিল, কুদ্দুসের ছেলে আবুল কালাম ও বড় টেংরা এলাকার আবুল হাসেমের ছেলে ফুল মিয়া।

কোস্ট গার্ডের পাথরঘাটা স্টেশন কমান্ডার লে. ফাহিম শাহরিয়ার বলেন, নিখোঁজ ট্রলারটির অনুসন্ধান চলছে। কোনও খবর পেলে তাৎক্ষণিক জানানো হবে।

আরো পড়ুন ...

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১