Pallibarta.com | বিষন্নতা কমাবে এই খাবারগুলো - Pallibarta.com

বৃহস্পতিবার, ২ ডিসেম্বর ২০২১

বিষন্নতা কমাবে এই খাবারগুলো

অনেক সময় অবসাদে বা বিষণ্নতায় ভুগলে চিকিৎসকের শরণাপন্ন হই। কিন্তু স্বাস্থ্যকর খাবারের মাধ্যমে আমরা এই সমস্যার সমাধান পেতে পারি। খাবার যে শুধু শরীরকে পুষ্টি দেই এমন নয়, মানসিক স্বাস্থ্যের জন্যও বেশ গুরুত্বপূর্ণ।

তাই খাবারের প্লেটে এমন কিছু খাবার রাখুন যেগুলো আপনার মানসিক স্বাস্থ্যকে ভালো রাখবে। চলুন দেখে নেওয়া যাক সেসব খাবারগুলো-

মাছ: একটু তৈলাক্ত মাছ রাখুন খাবারের প্লেটে। খেতে পারেন টুনা, স্যামন জাতীয় মাছ। এই ধরনের মাছে প্রচুর পরিমাণে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড রয়েছে, যা মানসিক স্বাস্থ্য ভালো রাখতে সাহায্য করে। এমনকি বিভিন্ন গবেষণার মাধ্যমেও জানা গেছে যে, মাছ যারা বেশি খান, তাদের অবসাদজনিত সমস্যা অনেক কম হয়।

বাদাম: যারা বাদাম খেতে ভালোবাসেন তারা কাজু, হ্যাজেল নাট, আখরোট ইত্যাদি বাদাম খেতে পারেন। প্রত্যেকটিতেই প্রচুর পরিমাণে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি-অ্যাসিড রয়েছে। তবে সবচেয়ে বেশি উপকার পাবেন আখরোট খেলে। কারণ মস্তিষ্কের স্বাস্থ্য ভালো রাখতেও এর জুড়ি নেই। প্রতিদিন ১-৪ কাপ আখরোট খেলে অবসাদের প্রবণতা কমবে।

আরও পড়ুনঃ সকালে ভুলেও খাবেন না যেসব খাবার

কড়াইশুঁটি: কাজ করার ফাঁকে খেতে কয়েকটি কড়াইশুঁটি। এতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন ও ফাইবার। কড়াইশুঁটি রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখতেও সহায়তা করে। রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে থাকলে ঘন ঘন মনখারাপ বা মেজাজ বদলে যাওয়ার মতো সমস্যা অনেক কমে।

চিয়াসিড বীজ: প্রতিদিন সালাদ বা স্যুপের সঙ্গে একটু ফ্ল্যাক্সসিড আর চিয়াসিড খেয়ে দেখুন। মন খারাপের সমস্যা অনেকটাই কমবে। এই দুই বীজেও রয়েছে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড। প্রতিদিন ১ টেবিল চামচ করে এই বীজ খেলেই মিলবে উপকার।

মুরগির মাংস: মুরগির মাংসও কমাতে পারে অবসাদের ঝুঁকি। বাজার থেকে কেনার সময় চিকেন ব্রেস্ট কিনে আনুন। এতে অনেক বেশি পরিমাণে রয়েছে ট্রিপটোফ্যান, যা সেরোটোনিন উৎপাদনে সহায়তা করে। ফলে ঘুম তো ভালো হয়ই আর মনও ভালো থাকে।
সূত্র: আনন্দবাজার

আরো পড়ুন ...

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১